মরণঘাতী করোনা ভাইরাসের আক্রমনে তছনছ যখন গোটা পৃথিবী, মুখ থুবড়ে পড়ছে বিশ্ব অর্থনীতি, একে একে বিশ্বের প্রায় প্রতিটি দেশেই ছড়িয়ে পড়ছে করোনার মহামারী, তখন মহামারী রোধে কি ভাবে চলতে হবে সমস্ত মানব সম্প্রদায়কে , তা নিয়ে নির্দেশনা আসছে বিভিন্ন সংস্হা, প্রশাসন ও গবেষকদের কাছে থেকে।

এবার প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বিশ্ববাসীকে মহানবী হযরত মোহাম্মদ (সা.)-এর নির্দেশনা মানার আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন এক গবেষক।

যুক্তরাষ্ট্রের গবেষণা ও সংবাদভিত্তিক ম্যাগাজিন নিউজউইকের এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়। প্রতিবেদনটি লিখেন মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে অবস্থিত রাইস ইউনিভার্সিটির একজন গবেষক। এছাড়া একজন আন্তর্জাতিক বক্তা।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ইমিউনোলজিস্ট ডা. অ্যান্থনি ফসি এবং মেডিকেল রিপোর্টার ডা. সঞ্জয় গুপ্তের মতো বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বলেছেন, সংক্রামক রোগের বিস্তার রোধে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার পাশাপাশি সুন্দর ব্যবস্থাপনায় হোম কোয়ারেন্টাইন থাকতে।

একই সঙ্গে সুস্থ লোকদের জনসমাগম এড়িয়ে চলতে পরামর্শ দিয়েছেন। তারা দাবি করেছেন, এসব উপায়ই হলো করোনা ভাইরাস (কভিড-১৯) থেকে বেঁচে থাকার সবচেয়ে কার্যকর মাধ্যম।

মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন তার রিপোর্টে লিখেন, আপনারা কি জানেন মহামারির সময়ে সর্বপ্রথম কে এই সবচেয়ে ভালো কোয়ারেন্টাইনের উদ্ভাবন করেছেন?

আজ থেকে প্রায় ১৩শ বছর আগে ইসলাম ধর্মের নবী হজরত মোহাম্মাদ (সা.) পৃথিবীর ইতিহাসে সর্বপ্রথম কোয়ারেন্টাইনের ধারণা দেন। যদিও তার সময়ে সংক্রামণ রোগের মতো কোনো বিশেষজ্ঞ ছিলেন না। তারপরেও তিনি এসব রোগব্যাধিতে তার অনুসারীদের যে নির্দেশনা দিয়েছেন, তা ছিল কভিড-১৯ এর মতো প্রাণঘাতী রোগ মোকাবেলায় দুর্দান্ত পরামর্শ। তার সেই পরামর্শ মানলেই করোনার মতো যেকোনো মহামারী থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব।

এর উদাহরণ হিসেবে মার্কিন গবেষক মোহাম্মাদ (সা.)-এর একটি বাণী উল্লেখ করেন।

তিনি লিখেন- ’মোহাম্মাদ বলেছেন, যখন তুমি কোনো ভূখণ্ডে প্লেগ ছড়িয়ে পড়ার খবর শুনতে পাও তখন সেখানে প্রবেশ করো না। পক্ষান্তরে প্লেগ যদি তোমার অবস্থানস্থল পর্যন্ত পৌঁছে যায় তাহলে ওই জায়গা ত্যাগ কোরো না।’

তিনি আরও বলেছেন, ’যারা সংক্রামক রোগে আক্রান্ত হয়েছে তাদের থেকে সুস্থ মানুষকে দূরে থাকতে হবে।’

এভাবে বিভিন্ন সময়ে মানব জাতিকে সংক্রামণ থেকে রক্ষা করতে মোহাম্মাদ (সা.) রোগব্যাধিতে আক্রান্ত লোকদের পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারেও উদ্বুদ্ধ করতেন।

করোনা ভাইরাস: মহানবীর নির্দেশনা মানার আহ্বান মার্কিন গবেষকের
মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন

এ ব্যাপারে নবীর অমূল্য বাণীগুলো হচ্ছে- ’পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ঈমানের অঙ্গ।’

’ঘুম থেকে ওঠার পরে হাত ধৌত করো। কেননা ঘুমের সময় তোমার হাত কোথায় স্পর্শ করেছে তা তুমি জান না।’

’খাওয়ার আগে ও পরে হাত ধোয়ার মধ্যে বরকত রয়েছে।’ ইত্যাদি।

মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন তার প্রতিবেদনে আরো লিখেন, আর যদি কেউ অসুস্থ হয়ে পড়ে, তখন মোহাম্মাদ (সা.) তার অনুসারীদের সে বিষয়ে কী ধরণের পরামর্শ দিয়েছিলেন তা জানতে হবে।

সে সময় তিনি মানুষদের চিকিৎসা এবং ওষুধ খেতে উৎসাহিত করতেন। তিনি বলেছেন, ’আল্লাহ কোনো রোগ তার প্রতিকার না দিয়ে তৈরি করেননি।’

সবচেয়ে বড় কথা, মোহাম্মাদ (সা.) এটা বলেননি যে, শুধু তুমি প্রার্থনা করে বসে থাকবে। বরং তুমি প্রার্থনার পাশাপাশি চিকিৎসা নেবে। সংক্রামক রোগ থেকে রক্ষা পেতে মৌলিক নিয়মগুলি মেনে চলবে।

এর উদাহরণ হিসেবে মোহাম্মাদ (সা.)-এর সময়ের একটি ঘটনার কথা উল্লেখ করেন মার্কিন গবেষক।

তিনি তিরমিজি শরিফের বরাত দিয়ে লিখেন, ’একদিন, নবী এক বেদুইনকে লক্ষ্য করলেন যে, সে তার উটটি না বেঁধে চলে যাচ্ছে। তখন তিনি বেদুইনকে জিজ্ঞাসা করলেন, ’তুমি তোমার উটটি বেঁধে রাখছো না কেন?’

জবাব বেদুইন বললো, ’আমি আল্লাহ উপর ভরসা রেখেছি।’ তখন নবী বললেন, ’তোমার উটটি আগে বেঁধে রাখ, তারপর আল্লাহ উপর আস্থা রাখ।’

মোটকথা, মোহাম্মাদ (সা.) ধর্মীয় ক্ষেত্রে যেমন অবদান রেখে অমর হয়ে আছেন। ঠিক তেমনি মানুষের জীবনযাপন বিষয়ক মহামূল্যবান যে পরামর্শ তিনি দিয়ে গেছেন তা আজও অনুকরণীয়।

আরো পড়ুন

আশিক টাওয়ারে রাতের আসর ভিন্ন মাত্রায় পৌঁছে দিয়েছিল ইরফান সেলিমকে

28 October, 2020 | Hits:534

রাত বেড়ে যাওয়ার সাথে সাথে পুরাতন ঢাকার রাস্তা এবং সড়কগুলো শুরু হয় ফাঁকা হতে। এ দিকে কমতে শুরু করে ভিড়। কোলাহল কমে গিয়ে অ...

স্ত্রীর সাথে অভিমান করেই এমনটি করেছিলেন ইরফান সেলিম

28 October, 2020 | Hits:444

রাজধানীর চকবাজার এলাকার সাংসদ হাজী সেলিমের রাজপ্রাসাদসম ভবন ’চান সরদার দাদা বাড়ি’ হতে গ্রে’/প্তার হয়েছিলেন হাজী সেলিমের ...

নিলামে উঠছে মোংলা বন্দরে পড়ে থাকা বিপুল সংখ্যক বিলাসবহুল গাড়ি, সুযোগ হচ্ছে কেনার

28 October, 2020 | Hits:353

করোনা পরিস্থিতির কারনে খালাস করে না নেওয়ায় এবার নিলামে উঠতে চলেছে মোংলা বন্দরে পড়ে থাকা ৯২টির মতো রিকন্ডিশন এবং বিলাসবহু...

গ্রে'ফতারের পর কোয়ারেন্টিনে থাকতে হচ্ছে হাজী সেলিমপুত্রকে

27 October, 2020 | Hits:338

নৌবাহি’নীর একজন কর্মকর্তার সাথে আশোভন আচারন এবং মা’রধ’রের ঘটনায় গ্রে’ফতার হয়েছেন সাংসদ হাজী সেলিমের ছেলে এবং ওয়ার্ড কাউন...

এবার সৌদিতে নারীদের বিদেশি স্বামীর ক্ষেত্রে শর্ত শিথিল করে হলো নতুন এক আইন

28 October, 2020 | Hits:336

সৌদি আরবের যে সকল নারী অন্য কোনো দেশের কোনো পুরুষকে বিয়ে করেছেন বা স্বামী গ্রহণ করার মাধ্যমে সন্তান জন্ম দিয়েছেন। পূর্বে...

এবার ইরফান সেলিম সম্পর্কে ভিন্ন এক তথ্য দিল র‍্যাব

27 October, 2020 | Hits:272

গত রবিবার রাতে ঢাকা-৭ সংসদ সদস্য হাজী মোহাম্মদ সেলিমের ছেলে কাউন্সিলর ইরফান সেলিম ও তার সহযোগীরা নেভি অফিসার লেঃ মোঃ ওয়...

৭০ সদস্যে বিশিষ্ট শক্তিশালী আর্মড গ্যাং পরিচালনায়ও ছিল অভিনবত্ব ইরফান সেলিমের

28 October, 2020 | Hits:177

নৌবাহি/’নীর একজন কর্মকর্তাকে লা’/ঞ্চনা এবং মা’/রধরের ঘটনায় গ্রে’/প্তার হয়েছেন সাংসদ হাজী সেলিমের পূত্র কাউন্সিলর ইরফান স...

ঢাবিতে ৪ বছর একসাথে পার করলেও রুম্পার চেহারা কোনোদিন দেখেনি সহপাঠীরা

28 October, 2020 | Hits:173

পাবনা জেলার ঈশ্বরদী উপজেলায় ইচ্ছার বিরুদ্ধে পুরোপুরি জোর করে পছন্দ না হওয়া এক ছেলে সাথে বিয়ে দেবার প্রস্তুতি নেবার সময়ে ...

ব্লু এর বদলে গ্রীণ মোবাইল, রেগে দিলেন রে'পের মা'মলা

28 October, 2020 | Hits:142

বর্তমান সময়ে দেশে যে বিষয়টি নিয়ে শুরু হয়েছে আলোচনা সেটি হলো রে’/পের ঘটনা। এই বিষয়টি নিয়ে যেন আলোচনার অন্ত নেই। তবে এই সু...

করোনা নিয়ন্ত্রনে মহানবীর নির্দেশনা মানার আহ্বান মার্কিন গবেষক ক্রেইগের
Logo
Print

বিশেষ প্রতিবেদন Hits: 18401

 

মরণঘাতী করোনা ভাইরাসের আক্রমনে তছনছ যখন গোটা পৃথিবী, মুখ থুবড়ে পড়ছে বিশ্ব অর্থনীতি, একে একে বিশ্বের প্রায় প্রতিটি দেশেই ছড়িয়ে পড়ছে করোনার মহামারী, তখন মহামারী রোধে কি ভাবে চলতে হবে সমস্ত মানব সম্প্রদায়কে , তা নিয়ে নির্দেশনা আসছে বিভিন্ন সংস্হা, প্রশাসন ও গবেষকদের কাছে থেকে।

এবার প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বিশ্ববাসীকে মহানবী হযরত মোহাম্মদ (সা.)-এর নির্দেশনা মানার আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন এক গবেষক।

যুক্তরাষ্ট্রের গবেষণা ও সংবাদভিত্তিক ম্যাগাজিন নিউজউইকের এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়। প্রতিবেদনটি লিখেন মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে অবস্থিত রাইস ইউনিভার্সিটির একজন গবেষক। এছাড়া একজন আন্তর্জাতিক বক্তা।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ইমিউনোলজিস্ট ডা. অ্যান্থনি ফসি এবং মেডিকেল রিপোর্টার ডা. সঞ্জয় গুপ্তের মতো বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা বলেছেন, সংক্রামক রোগের বিস্তার রোধে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার পাশাপাশি সুন্দর ব্যবস্থাপনায় হোম কোয়ারেন্টাইন থাকতে।

একই সঙ্গে সুস্থ লোকদের জনসমাগম এড়িয়ে চলতে পরামর্শ দিয়েছেন। তারা দাবি করেছেন, এসব উপায়ই হলো করোনা ভাইরাস (কভিড-১৯) থেকে বেঁচে থাকার সবচেয়ে কার্যকর মাধ্যম।

মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন তার রিপোর্টে লিখেন, আপনারা কি জানেন মহামারির সময়ে সর্বপ্রথম কে এই সবচেয়ে ভালো কোয়ারেন্টাইনের উদ্ভাবন করেছেন?

আজ থেকে প্রায় ১৩শ বছর আগে ইসলাম ধর্মের নবী হজরত মোহাম্মাদ (সা.) পৃথিবীর ইতিহাসে সর্বপ্রথম কোয়ারেন্টাইনের ধারণা দেন। যদিও তার সময়ে সংক্রামণ রোগের মতো কোনো বিশেষজ্ঞ ছিলেন না। তারপরেও তিনি এসব রোগব্যাধিতে তার অনুসারীদের যে নির্দেশনা দিয়েছেন, তা ছিল কভিড-১৯ এর মতো প্রাণঘাতী রোগ মোকাবেলায় দুর্দান্ত পরামর্শ। তার সেই পরামর্শ মানলেই করোনার মতো যেকোনো মহামারী থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব।

এর উদাহরণ হিসেবে মার্কিন গবেষক মোহাম্মাদ (সা.)-এর একটি বাণী উল্লেখ করেন।

তিনি লিখেন- ’মোহাম্মাদ বলেছেন, যখন তুমি কোনো ভূখণ্ডে প্লেগ ছড়িয়ে পড়ার খবর শুনতে পাও তখন সেখানে প্রবেশ করো না। পক্ষান্তরে প্লেগ যদি তোমার অবস্থানস্থল পর্যন্ত পৌঁছে যায় তাহলে ওই জায়গা ত্যাগ কোরো না।’

তিনি আরও বলেছেন, ’যারা সংক্রামক রোগে আক্রান্ত হয়েছে তাদের থেকে সুস্থ মানুষকে দূরে থাকতে হবে।’

এভাবে বিভিন্ন সময়ে মানব জাতিকে সংক্রামণ থেকে রক্ষা করতে মোহাম্মাদ (সা.) রোগব্যাধিতে আক্রান্ত লোকদের পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারেও উদ্বুদ্ধ করতেন।

করোনা ভাইরাস: মহানবীর নির্দেশনা মানার আহ্বান মার্কিন গবেষকের
মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন

এ ব্যাপারে নবীর অমূল্য বাণীগুলো হচ্ছে- ’পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ঈমানের অঙ্গ।’

’ঘুম থেকে ওঠার পরে হাত ধৌত করো। কেননা ঘুমের সময় তোমার হাত কোথায় স্পর্শ করেছে তা তুমি জান না।’

’খাওয়ার আগে ও পরে হাত ধোয়ার মধ্যে বরকত রয়েছে।’ ইত্যাদি।

মার্কিন গবেষক ড. ক্রেইগ কন্সিডাইন তার প্রতিবেদনে আরো লিখেন, আর যদি কেউ অসুস্থ হয়ে পড়ে, তখন মোহাম্মাদ (সা.) তার অনুসারীদের সে বিষয়ে কী ধরণের পরামর্শ দিয়েছিলেন তা জানতে হবে।

সে সময় তিনি মানুষদের চিকিৎসা এবং ওষুধ খেতে উৎসাহিত করতেন। তিনি বলেছেন, ’আল্লাহ কোনো রোগ তার প্রতিকার না দিয়ে তৈরি করেননি।’

সবচেয়ে বড় কথা, মোহাম্মাদ (সা.) এটা বলেননি যে, শুধু তুমি প্রার্থনা করে বসে থাকবে। বরং তুমি প্রার্থনার পাশাপাশি চিকিৎসা নেবে। সংক্রামক রোগ থেকে রক্ষা পেতে মৌলিক নিয়মগুলি মেনে চলবে।

এর উদাহরণ হিসেবে মোহাম্মাদ (সা.)-এর সময়ের একটি ঘটনার কথা উল্লেখ করেন মার্কিন গবেষক।

তিনি তিরমিজি শরিফের বরাত দিয়ে লিখেন, ’একদিন, নবী এক বেদুইনকে লক্ষ্য করলেন যে, সে তার উটটি না বেঁধে চলে যাচ্ছে। তখন তিনি বেদুইনকে জিজ্ঞাসা করলেন, ’তুমি তোমার উটটি বেঁধে রাখছো না কেন?’

জবাব বেদুইন বললো, ’আমি আল্লাহ উপর ভরসা রেখেছি।’ তখন নবী বললেন, ’তোমার উটটি আগে বেঁধে রাখ, তারপর আল্লাহ উপর আস্থা রাখ।’

মোটকথা, মোহাম্মাদ (সা.) ধর্মীয় ক্ষেত্রে যেমন অবদান রেখে অমর হয়ে আছেন। ঠিক তেমনি মানুষের জীবনযাপন বিষয়ক মহামূল্যবান যে পরামর্শ তিনি দিয়ে গেছেন তা আজও অনুকরণীয়।
Template Design © Joomla Templates | GavickPro. All rights reserved.