আরিক নকভি, যিনি একজন বেশ দক্ষ পাকিস্তানের ব্যবসায়ী। এই ব্যবসায়ীর একটি প্রাইভেট সমবায় প্রতিষ্ঠানও ছিল। যার নাম দিয়েছিলেন আবরাজ গ্রুপ। তিনি সংগঠনের প্রধান হিসেবে নীতিমালা প্রনয়ন করতেন।

আরো পড়ুন

Error: No articles to display

তিনি বিশ্বের নামকরা বহু সংখ্যক ধনী ও ক্ষমতাধর মানুষকে বড় ধরনের বোকা বানানোর মাধ্যমে লাখ লাখ ডলার কামিয়ে নিয়েছেন। তার সেই তালিকাতে আছেন আমেরিকার বর্তমান সময়কার ধনকুবের ও মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটসও।

সাইমন ক্লার্ক এবং উইল লুইসের সাম্প্রতিক প্রকাশিত বইয়ে এমন তথ্য উঠে এসেছে। বলা হয় আরিফ নকভি বিল গেটসকে বোকা বানিয়ে ১০০ মিলিয়ন ডলার আ’ত্মসাৎ করেছেন।

আরিফ নাকভি বিশ্বের শীর্ষ ধনীদের কাছ থেকে জনকল্যাণমূলক কাজের কথা বলে অর্থ সংগ্রহ করতেন। তিনি সময় কা’টাতেন ধনী ও ক্ষমতাধর ব্যক্তিদের সাথে। যার মধ্যে আছে বিল গেটস, বিল ক্লিনটন এবং গোল্ডম্যান স্যাকসের সাবেক সিইও লয়েড ব্ল্যাঙ্কফেইনের মতো ব্যক্তিরাও।

দাভোস এবং অন্যান্য বেশ কিছু সম্মেলনে বিল গেটসের সাথে আরিফের আলাপ হয় বলে বইটিতে দা’বি করা হয়েছে। সেখানে বিল গেটসের সাথে লম্বা সময় আলোচনা করেন আরিফ। দু’জনেই একমত হন যে, পাকিস্তানের পরিবার পরিকল্পনা কর্মসূচির জন্য তাদের একত্রে কাজ করা উচিত। বিল গেটস আরিফের কোথায় এতোটাই মুগ্ধ হন যেন তিনি এমন কারও সাথেই পরিচিত হতে চাচ্ছিলেন। এর পর গেটস ফাউন্ডেশন আরিফের প্রতিষ্ঠানের জন্য ১০০ মিলিয়ন ডলার অনুদান দেয় যাতে পাকিস্তানে মার্কেট, হাসপাতাল ও ক্লিনিক প্রতিষ্ঠা করা হয়।

এমনভাবেই শীর্ষ ধনীদেরকে প্র’/তারিত করে বড় অঙ্কের অর্থ সংগ্রহ করে তা আ’ত্মসাৎ করেছেন আরিফ, বলা হয়েছে সিমন ক্লার্ক ও উইল লিউসের সদ্য প্রকাশিত বইয়ে।

বই অনুসারে, আরিফ নকভি জনকল্যাণের জন্য কাজ করবেন এই ধরনের কথা বলার মাধ্যমে বিশ্বের বেশ কয়েকজন শীর্ষ পর্যায়ের ধনী ব্যক্তিদের নিকট হতে প্রায় ৭৮০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার নিয়েছিলেন। কিন্তু তহবিলটির থেকে যে ব্যয় দেখানো হয় সেখান থেকে ৩৮৫ মিলিয়ন ডলারের কোনো হদিস মেলেনি।

শেষ অবধি, ১০ এপ্রিল, ২০১৯ তারিখে আরিফ নকভীকে লন্ডনে অবস্থিত হিথ্রো বিমানবন্দরে জালিয়াতির অভিযোগে অভিযুক্ততার কারনে আ’/ট’ক করা হয়েছিল। তার বিরু’দ্ধে অভি’যোগটি প্রমাণিত হওয়ার পরে আদা’লত তাকে কা’/রা’দ/ন্ড প্রদান করেন।


আরো পড়ুন

Error: No articles to display