করোনা ভাইরাসকে কেন্দ্র করে বিশ্ব জুড়ে তৈরি হয়েছে এক অস্থিতিশীল পরিবেশ। এবং বিশ্ববাসী নানা সংকটের সম্মুখীন হয়েছে। মধ্যেপ্রাচ্যের দেশ গুলোতে মারাত্মক আকার ধারন করেছে করোনা ভাইরাস। অসংখ্য নারী-পুরুষ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রান হারিয়েছে। করোনা ভাইরাসের সংকটময় পরিস্থিতিতে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প চিকিৎসা সরঞ্জামের উপর বিশেষ নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। এর ফলে সংকটের মুখে পড়েছে অনেক দেশ।
কানাডাসহ দক্ষিণ আমেরিকার দেশগুলোতে চিকিৎসা সরঞ্জাম রপ্তানি বন্ধে ট্রাম্পের সিদ্ধান্তে ক্ষোভ জানিয়েছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো। তিনি বলেন, প্রতিদিন হাজারো কানাডীয় স্বাস্থ্যকর্মী যুক্তরাষ্ট্রে চিকিৎসাসেবা দিয়ে থাকে। কৃতজ্ঞতাস্বরূপ তাই এ ধরনের সিদ্ধান্ত নেয়া ঠিক হবে না দেশটির।

কানাডায় এখন পর্যন্ত প্রায় ১২ হাজার সংক্রমিত হয়েছেন। স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার ট্রাম্প জানান, চিকিৎসা সরঞ্জামের ঘাটতি মেটাতে প্রয়োজনে প্রস্তুতকারক কোম্পানীগুলোকে রপ্তানি বন্ধে নির্দেশনা দেয়া হবে। কয়েকদিনের ব্যবধানে যুক্তরাষ্ট্রে করোনা সংক্রমণের হার অস্বাভাকি হারে বৃদ্ধি পাওয়ায় সম্প্রতি চিকিৎসা সরঞ্জামের সংকট দেখা দেয়। ফেস মাস্কের মত জরুরি জিনিসগুলোরও ঘাটতি দেখা যায়।

উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাসের কোন প্রতিষেধক নেই। এরই ধারাবাহিকতায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশ নানা ধরনের সর্তকতা অবলম্বন করছে করোনা ভাইরাস মোকাবিলার জন্য। এছাড়াও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও কাজ করছে করোনা ভাইরাস মোকাবিলার জন্য। এবং বিশ্বের সকল দেশকে এক সঙ্গে মিলিত হয়ে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছে করোনা ভাইরাস মোকাবিলার জন্য।

আরো পড়ুন

Error: No articles to display